পশ্চিমাদের জনপ্রিয় ও সুস্বাদু একটি খাবার মিট লোফ

0
562

ইউরোপ ও আমেরিকার খুবই জনপ্রিয় একটি খাবারের নাম মিট লোফ। সাধারনত ম্যাশ পটেটো এবং ব্রেড দিয়ে পশ্চিমারা মিট লোফ মূল খাবার হিসেবে খেয়ে থাকে। তবে কখনো কখনো স্যান্ডউইচের মধ্যে মিট লোফ দিয়ে নাস্তা হিসেবে খাওয়ার প্রচলন রয়েছে।

মিট লোফ; source: youtube.com

রেসিপিটি জানা থাকলে আপনিও বাড়িতে খুব সহজেই এই খাবারটি রান্না করে খেতে পারেন। জন্মদিন বা ছোটখাটো যেকোনো অনুষ্ঠানে মিট লোফ পরিবেশন করা যেতে পারে। চলুন জেনে নেয়া যাক পশ্চিমাদের জনপ্রিয় খাবার মিট লোফের রেসিপি সম্পর্কে।

প্রয়োজনীয় উপকরণ

  • মাংসের কিমা ১ কেজি
  • পাউরুটি ৪ টুকরো
  • দুধ আধা কাপ
  • আদা বাটা আধা চা চামচ
  • রসুন বাটা আধা চা চামচ
  • ওয়েস্টার সস ১ টেবিল চামচ
  • কাঁচা মরিচ পরিমাণমতো
  • গরম মসলার গুঁড়া আধা চা চামচ
  • কালো গোল মরিচের গুঁড়া পরিমাণমতো
  • জিরা গুঁড়া আধা চা চামচ
  • চিজ ৫০ গ্রাম
  • ডিম ২ টি
  • রান্নার তেল পরিমাণমতো
  • ধনিয়া পাতা স্বাদ অনুযায়ী
  • লবণ স্বাদ অনুযায়ী
  • মাঝারি আকারের তিন থেকে চারটি পেঁয়াজ
  • রসুনের কোয়া ৪-৫টি
  • টমেটো সস পরিমাণমতো

প্রস্তুত প্রণালী

প্রথমেই চুলায় একটি প্যান বসিয়ে কিছুটা তেল ঢেলে নিয়ে গরম করতে হবে। ৩টি মাঝারি আকারের পেঁয়াজ ছোট ছোট করে কিউব করে কেটে নিয়ে প্যানের গরম তেলে ছেড়ে দিতে হবে। একটি চামচের সাহায্যে পেঁয়াজগুলোকে কিছুক্ষণ নেড়েচেড়ে নিতে হবে। একটু ঘন ঘন নাড়তে হবে, নয়তো পুড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

পেয়াজ ও রসুন ভেঁজে নেওয়া; source: udrajirannaghor.wordpress.com

কিছুক্ষণ নেড়ে নেয়ার পর তিন থেকে চার কোয়া রসুন মোটা মোটা করে কেটে নিয়ে প্যানে ছেড়ে দিতে হবে। এরপর আবারো কিছুটা নেড়ে দিতে হবে। এপর্যায়ে সামান্য গোল মরিচের গুঁড়া ছিটিয়ে দিতে হবে। আবারো কিছুক্ষণ চামচ দিয়ে নেড়েচেড়ে দিতে হবে। সামান্য পরিমাণ লবণ ছিটিয়ে দিতে হবে। এখানে খুব বেশি লবণ দেয়া যাবে না, কারণ কিমায় আবার লবণ দিতে হবে।

এরপর চামচ দিয়ে আবারো নেড়েচেড়ে দিতে হবে। নাড়তে নাড়তে যখন পেঁয়াজের রং কিছুটা বাদামী হয়ে আসবে, তখন বুঝতে হবে এটা হয়ে গেছে। এরপর ৪ পিস পাউরুটির সাইডের শক্ত অংশগুলো একটি চাকুর সাহায্যে কেটে নিতে হবে। তারপর পাউরুটির পিসগুলো ছোট ছোট টুকরো করে নিয়ে একটি বাটিতে রাখতে হবে।

মাংসের কিমার সাথে মেশানোর জন্য পাউরুটি; source: freeradiotune.com

এভাবে ছোট করে নেয়ার কারণ- ছোট টুকরো করে পাউরুটিগুলো নিলে কিমার সাথে খুব ভালোভাবে মিশে যাবে। এরপর সাধারণ তাপমাত্রায় রাখা এক কাপ দুধ পাউরুটির বাটিতে দিয়ে দিতে হবে। এরপর হাত দিয়ে খুব ভালো করে পাউরুটির টুকরোগুলো দুধের মধ্যে চেপে চেপে মিশিয়ে নিতে হবে।

তারপর একটি বাটিতে পরিমাণমতো কাঁচা মরিচ কুচি নিয়ে নিতে হবে। কাঁচা মরিচের বাটিতে ১ চা চামচ পরিমাণ লবণ দিয়ে হাত দিয়ে চটকে কাঁচা মরিচের সাথে লবণ মেশাতে হবে। এবার এই বাটিতে ১ কেজি পরিমাণ মাংসের কিমা দিয়ে দিতে হবে। মাংসের কিমা দেয়া হয়ে গেলে পেঁয়াজ রসুনের যে মিশ্রণটা হালকা ভেজে নেওয়া হয়েছিল, সেটা বাটিতে দিয়ে দিতে হবে।

মাংসের কিমা; source: kimatv.com

এরপর পর্যায়ক্রমে বাটিতে আধা চা-চামচ আদা বাটা, আধা চা চামচ রসুন বাটা ও দুটো ডিম ভেঙে ভালো করে গুলিয়ে নিয়ে বাটিতে ঢেলে দিতে হবে। এরপর দুধ দিয়ে মেশানো পাউরুটিগুলো দিয়ে দিতে হবে।  এরপর আধা চা চামচ গরম মসলার গুঁড়া, আধা চা চামচ পরিমাণ জিরার গুঁড়া, সামান্য গোল মরিচের গুঁড়া, ১ টেবিল চামচ পরিমাণ ওয়েস্টার সস ও সামান্য ধনিয়া পাতা কুচি দিয়ে খুব ভালো করে হাত দিয়ে মেখে নিতে হবে, যেন সবগুলো উপাদান খুব ভালোভাবে মাংসের কিমার সাথে মিশে যায়।

সবগুলো উপাদান মেশানো হয়ে গেলে প্রায় ৫০ গ্রাম চিজ গ্রেট করে দিয়ে দিতে হবে। চিজ দেয়ার পর আবারো খুব ভালোভাবে হাত দিয়ে মেখে মাংসের কিমার মিশ্রণের সাথে মিশিয়ে নিতে হবে। ২০০ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড তাপমাত্রায় ওভেন ১০ মিনিট ধরে প্রি-হিট করে নিতে হবে। উপাদানগুলো খুব ভালোভাবে মেশানো হয়ে গেলে একটি ওভেন ট্রেতে সামান্য পরিমাণ রান্নার তেল দিয়ে ব্রাশ করে নিতে হবে। 

ওভেন ট্রেতে কিমাটা বসিয়ে দেওয়ার পদ্ধতি; source: youtube.com

একটু ভালো করে ঘুরিয়ে ঘুরিয়ে ওভেন ট্রেতে ব্রাশ করতে হবে, যেন তেলটা সব জায়গায় খুব ভালোভাবে মেখে যায়। এরপর ট্রেতে কিমার সম্পূর্ণ মিশ্রণটি রেখে হাত দিয়ে চেপে চেপে শেপ তৈরি করে নিতে হবে। ট্রেতে মাংসের কিমার মিশ্রণটি একটু ভালোভাবে চেপে চেপে রাখতে হবে যেন খুব সুন্দরভাবে জমাট বাঁধে।

এরপর পরিমাণমতো টমেটো সস একটি বাটিতে নিয়ে হাত দিয়ে মাংসের কিমার ওপর মেখে দিতে হবে। একটু ভালো করে মেখে দিতে হবে যেন কিমার সম্পূর্ণ অংশে সমানভাবে টমেটোর সস লেগে যায়। এরপর প্রি-হিট করে নেয়া ওভেনে ট্রে ঢুকিয়ে দিয়ে ১০০ ডিগ্রি তাপমাত্রায় ৮০ মিনিট ধরে মাংসের কিমা বেকড করতে হবে।

মাংসের কিমা বেকড করার জন্য ওভেনে ঢোকানো হচ্ছে; source: blogspot.com

৮০ মিনিট পর মাংসের কিমা ওভেন থেকে বের করে নিতে হবে। দেখা যাবে খুব সুন্দরভাবে মিট লোফ তৈরি হয়ে গেছে। মাংসের কিমার ওপরে টমেটো সস দেওয়ায় মিট লোফ খুব সুন্দর লাল রং ধারণ করবে। একটি কাঠি দিয়ে মিটলোফের ভেতর খুঁচিয়ে দেখতে হবে কাঠির মধ্যে কিছু উঠে আসে কিনা।

যদি কাঠির মধ্যে কিছু উঠে না আসে, তবে বুঝতে হবে মিট লোফ সুন্দরমতো হয়ে গেছে। এরপর একটি চাকুর সাহায্যে মিট লোফের চারদিকটা সুন্দর করে কেটে নিতে হবে। তাহলে ট্রে থেকে মিট লোফ উঠাতে সুবিধা হবে। এরপর মিট লোফ কিছুটা ঠাণ্ডা হলে একটি চাকুর সাহায্যে কেকের মতো স্লাইজ করে ছোট ছোট করে কেটে নিতে হবে।

তৈরি মিট লোফ; source: foodnetwork.com/recipes

অবশ্যই সাধারণ তাপমাত্রায় না আসা পর্যন্ত কাটার জন্য অপেক্ষা করতে হবে। গরম থাকা অবস্থায় কাটলে মিটলোফ ভেঙ্গে যেতে পারে। সুন্দর করে কেকের মতো কেটে নেয়ার পর একটি প্লেটে সাজিয়ে পরিবেশন করুন সুস্বাদু মিট লোফ।

Featured Image Source: simplyrecipes.com

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here